চামড়ার দরপতনের তদন্ত চেয়ে রিট

0
62

কোরবানির পশুর চামড়ার অস্বাভাবিক দরপতনের কারণ খুঁজতে বিচারিক তদন্ত চেয়ে হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে। গতকাল আইনজীবী ব্যারিস্টার মহিউদ্দিন মো: হানিফ (ফরহাদ) এ রিট আবেদন করেন।
তবে রিট আবেদনের শুনানি গ্রহণে অপারগতা প্রকাশ করেছেন হাইকোর্টের দু’টি বেঞ্চ। গতকাল রিট আবেদন শুনানির জন্য উপস্থাপন করা হলে বিচারপতি এফ আর এম নাজমুল আহাসানের নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট বেঞ্চ এবং বিচারপতি শেখ হাসান আরিফের নেতৃত্বাধীন অপর একটি বেঞ্চ রিট আবেদন শুনতে অপারগতা প্রকাশ করেন।
এ বিষয়ে রিটকারী আইনজীবী ব্যারিস্টার মহিউদ্দিন হানিফ বলেন, আজ সোমবার এ আবেদন শুনানির জন্য হাইকোর্টের আরেকটি বেঞ্চে উপস্থাপন করা হবে। রিটে বাণিজ্য, শিল্প সচিব, বাংলাদেশ ট্যানার্স অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান, বাংলাদেশ হাইড অ্যান্ড মার্চেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্টকে বিবাদি করা হয়েছে।
আবেদনে চামড়ার অপ্রত্যাশিত দরপতন প্রতিরোধে বিবাদিদের নিষ্ক্রিয়তা ও ব্যর্থতা কেন অবৈধ হবে না, দরপতনের কারণ খুঁজতে জুডিশিয়াল (বিচারিক) তদন্ত করতে কেন নির্দেশ দেয়া হবে না এবং এর জন্য দায়ীদের ব্যবসায়িক নিবন্ধন কেন বাতিল করা হবে না মর্মে রুল জারির আর্জি জানানো হয়েছে। এ সংক্রান্ত গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন যুক্ত করে এ রিট করা হয়েছে বলে জানিয়ে ব্যারিস্টার মহিউদ্দিন।
উল্লেখ্য, এবারের ঈদুল আজহায় পশুর চামড়ার ব্যাপক দরপতন হয়, যা বিগত ৩০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ দরপতন বলা হয়। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে অনেকে কোরবানির চামড়া পুঁতে ফেলেছেন। নদীতেও পশুর চামড়া ভাসিয়ে দেয়া হয়। আবার অনেকে রাস্তায় ফেলে রাখায় চামড়া পচে গেছে। এবার এক থেকে দেড় লাখ টাকার গরুর চামড়া ২০০ থেকে ৩০০ টাকা এবং একটি বড় ছাগলের চামড়া ২০ টাকায়ও বিক্রি করতে হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here